ইসলামী আদর্শের ভিত্তিতে শিক্ষা ব্যবস্থার পুনর্গঠন করতে হবে: মাওলানা ফেরদাউস

ইসলামী আদর্শের ভিত্তিতে শিক্ষা ব্যবস্থার পুনর্গঠন করতে হবে: মাওলানা ফেরদাউস

সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি:

উলামা পরিষদ নারায়ণগঞ্জ মহানগরের সভাপতি মাওলানা ফেরদাউসুর রহমান বলেন, পাঠ্যপুস্তকে যে সমস্ত বই স্কুল ও মাদরাসার বাধ্যতামূলকভাবে পড়ানোর জন্য এনসিটিবি নির্দেশনা জারি করেছে তা ধর্মপ্রাণ মুসলমানদেরকে মর্মাহত করেছে এবং তাদের সন্তানদের ভবিষ্যৎ শিক্ষা নিয়ে শঙ্কিত করে তুলেছে। এই সব কারিকুলামে কুরআন, সুন্নাহ, সাহাবায়ে কেরাম, আহলে বাইত, মুসলিম মনিষী, বিজ্ঞানী, কবি, সাহিত্যিকদের বাণী, উদ্বৃতি, নীতি-নৈতিকতা সৃষ্টিকারী কোন বিষয় স্থান পায়নি। 

মঙ্গলবার (২ এপ্রিল) বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্র পরিষদের উদ্যোগে আয়োজিত ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। 

সংগঠনের সভাপতি দেলোয়ার আল হুসাইন এর সভাপতিত্বে ও সাকিব সাইফীর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত হয়।  

তিনি আরো বলেন, উপরন্ত বিজ্ঞান বইয়ে উলঙ্গ নারী-পুরুষের ছবি, ছেলেমেয়েদের বিভিন্ন অঙ্গের বর্ণনা দিয়ে শিক্ষার্থীদের ঈমান হারা করার ব্যবস্থা করা হয়েছে, যা ইউরোপীয় সংস্কৃতির অংশ বিশেষ। তাছাড়া সামগ্রিক বিবেচনায় ৯১ শতাংশ মুসলমানের দেশে পাশ্চাত্য ও দেব-দেবীর বিশ্বাস ও তাদের আরাধনার শিক্ষা সংস্কৃতির আদলে তৈরী বইগুলো স্কুলের জন্যও উপযোগী নয়।শিক্ষার্থীদের এই সব বই পাঠ্যপুস্তক হিসেবে গ্রহণ ও ব্যবহার করা সম্ভব নয়। সরকারের প্রতি জোর দাবি জানাচ্ছি অচিরেই শিক্ষা ব্যবস্থাকে ইসলামী আদর্শের ভিত্তিতে পুনর্গঠন করুন, অন্যথায় এদেশের ছাত্র সমাজ ও ধর্মপ্রাণ মুসলমান রাজপথে নামতে বাধ্য হবে।

উক্ত ইফতার মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন উলামা পরিষদের সেক্রেটারি মাওলানা হারুনুর রশীদ, মাওলানা মীর আহমদুল্লাহ ফুয়াদ, খেলাফত ছাত্র মজলিসের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি মোল্লা খালেদ সাইফুল্লাহ ইসলামী ছাত্র সমাজের কেন্দ্রীয় সভাপতি এহতেশামুল হক সাখী, মাওলানা উবায়দুর রহমান, মাওলানা ফাতীহ সুলাইমান মাওলানা লোকমান হুসাইনসহ প্রমূখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *