লেগুনা চালক সবুজকে হত্যা সৈনিক লীগের দুই নেতা গ্রেপ্তার।

নিজস্ব প্রতিবেদক ঃ

ঢাকার পান্থপথে লেগুনা চালককে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকা বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের দুই নেতাকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব ১১ একটি দল।

শনিবার ২৫ নভেম্বর রাতে র‍্যাব ১১ এর মিডিয়া অফিসার সনদ বড়ুয়া স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তি মাধ্যমে তথ্য জানানো হয়েছে।

এর আগে শনিবার সন্ধ্যায় নারায়ণগঞ্জের বন্দরে মদনপুর বাগদোবাড়ী এলাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তাররা হলেন নারায়ণগঞ্জের বন্দরে মদনপুর এলাকার মোমিন আলীর ছেলে সাইফুল ইসলাম পলাশ এবং হাবিব উল্লাহর ছেলে সজীব অর্ণব।

এদের মধ্যে সাইফুল ইসলাম পলাশ বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগ বন্দর উপজেলা সভাপতি এবং সজীব অর্ণব বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের মদনপুর ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক।
বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি জসিম উদ্দিন।

র‍্যাব জানায়, গত ২ আগস্ট রাতে ঢাকার পান্থপথে বসুন্ধরা সিটি মার্কেটের সামনে রাস্তায় একটি লেগুনাকে ঠেলে নিয়ে যাওয়ার সময় একটি প্রাইভেট কারের সঙ্গে ধাক্কা লাগায় প্রাইভেটকার আরোহীরা লেগুনা চালক মোঃ সবুজ খানকে (৩৫)পিটিয়ে হত্যা করে । নিহতের সহকর্মী মোহাম্মদ জামাল ও মিন্টু জানায়, লেগুনা গাড়িটিতে গ্যাস শেষ হয়ে যাওয়ায় তারা তিনজন ঠেলে বসুন্ধরা সিটি সামনে দিয়ে কাওরান বাজার আড়ত হয়ে গ্যাস পাম্পের দিকে যাচ্ছিল।

প্রতিমধ্যে বসুন্ধরা সিটির সামনে রাস্তায় একটি প্রাইভেট কারের সঙ্গে সামান্য ধাক্কা লাগে। এতে প্রাইভেট কারের আরোহীরা গাড়ি থেকে নেমে এলো পাতারি কিল ঘুসি মেরে লেগুনা চালককে অজ্ঞান করে ফেলে চলে যায়। পরে বিগ টিমকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক রাতেই পরীক্ষা নিরীক্ষার পর ভিক্টিমকে মৃত ঘোষণা করেন। তবে সহকর্মীরা জানান, প্রাইভেট কারে লোকজন সবাই মদ্যপ অবস্থায় ছিল। উক্ত ঘটনায় তেজগাঁও থানা একটি মামলা রুযু হয়। ঘটনার পর গ্রেপ্তার আত্মগোপনে ছিলেন বলে জানান। পরে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *