শুল্ক ফাঁকি দিয়ে আসা দেড় কোটি টাকার ভারতীয় মালামাল জব্দ,আটক২

নারায়ণগঞ্জ থেকে,

নারায়ণগঞ্জ জলার ফতুল্লায় শুল্ক ফাঁকি দিয়ে আসা বিপুল পরিমাণ ভারতীয় শাড়ি কাপড় ও কসমেটিক্সসহ দুইজনকে আটক করেছে বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড।

শনিবার (৯ ডিসেম্বর) দুপুরে বাংলাদেশ কোস্টগার্ডের মিডিয়া কর্মকর্তা লেফট্যানেন্ট কমান্ডার খন্দকার মুনিফ তকি স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানানো হয়।

এর আগে বৃহস্পতিবার (৭ ডিসেম্বর) ভোরে ফতুল্লার পাগলা বাজার সংলগ্ন কুতুবপুর ইউনিয়ন ভূমি অফিসের সামনে থেকে তাদের আটক করা হয়।

এসময় বিপুর পরিমান শাড়ি-কাপড়, চাদর, ১ হাজার ৪৮৮ পিস শার্ট ও ব্লেজার, ৫ হাজার ৫৭১ পিস কসমেটিক্স সামগ্রী, ৩৮ টি সুতার গুটি, ৪০ টি হেডফোন, ৮ টি মোবাইল এবং ১২০ টি মোবাইল চার্জার জব্দ করা হয়।

আটকরা হলেন মোঃ দেলোয়ার হোসেন (৫৬) এবং মোঃ জুয়েল মাতাব্বর (২৬)।

বিজ্ঞপ্তিতে কোস্টগার্ড জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তারা জানতে পারে গত ৬ ডিসেম্বর রাতে মুন্সিগঞ্জের ধলেশ্বরী ব্রীজ টোলপ্লাজা সংলগ্ন এলাকা দিয়ে কুরিয়ার সার্ভিসের একটি কাভার্ডভ্যান যোগে শুল্ক ফাঁকি দিয়ে বেনাপোল বন্দর দিয়ে ভারত থেকে বাংলাদেশে আসা প্রসাধনী সামগ্রী ও শাড়ি ঢাকায় প্রবেশ করবে। ওই সংবাদের ভিত্তিতে ওইদিন রাতে তাদের একটি আভিযানিক দল ধলেশ্বরী ব্রীজ টোলপ্লাজা সংলগ্ন এলাকায় অভিযান চালায়। পরদিন ভোরে এসএ পরিবহনের পার্সেলবাহী এক কাভার্ডভ্যানকে থামার জন্য সংকেত দিলে কাভার্ডভ্যানটি দ্রুত চলে যায়।

পরবর্তীতে কোস্টগার্ডের আভিযানিক দলটি কাভার্ডভ্যানটিকে ধাওয়া করে জব্দ করে। পরে কাভার্ডভ্যানটি তল্লাশি করে শুল্ক ফাঁকি দিয়ে ভারত থেকে অবৈধভাবে আনা শাড়ি-কাপড়, চাদর, শার্ট ও রেজারসহ বিপুল পরিমান পণ্য পাওয়া যায়। যার আনুমানিক মূল্য ১ কোটি ৪৭ লাখ ৪৪ হাজার ৯৬০ টাকা।পরবর্তীতে জব্দকৃত মালামাল ও কাভার্ডভ্যানটিসহ আটক ব্যক্তিদের ফতুল্লা মডেল থানায় হস্তান্তর করা হয়।

প্রসঙ্গত, গত ২০ নভেম্বর এবং ৩ ডিসেম্বর কোস্টগার্ডের আভিযানিক দল এসএ পরিবহনের আরও দুটি কাভার্ডভ্যান তল্লাশি করে বিপুল পরিমান অবৈধপণ্য জব্দ করে প্রশাসনের নিকট হস্তান্তর করে।##

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *